bangla music

bangla music

জাতীয়

গাজীপুরে মা ও মেয়ের গলা কাটা লা`শ উদ্ধার

গাজীপুর মহানগরীর দেশীপাড়া এলাকা থেকে পুলিশ মা ও মেয়ের গলা কা`টা লা`শ উদ্ধার করেছে। বুধবার রাতে লা`শ দুটি উদ্ধার করে গাজীপুরের শহীদ তাজউদ্দীন মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ম`র্গে পাঠানো হয়েছে। তাদের পরিচয় পাওয়া যায়নি। পু`লিশ ধারনা করছে উদ্ধারকৃত লা`শ দুটি মা ও মেয়ের হতে পারে।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন সদর থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, দেশীপাড়া এলাকায় সড়কের পাশে মা-মেয়ের লা`শ পড়ে থাকতে দেখে এলাকাবাসী থানায় খবর দেয়। পরে পু`লিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লা`শ দুটি উদ্ধার করে। নি`হতদের গলায় ধা`রাল অ`স্ত্রের আ`ঘাতের চিহ্ন রয়েছে।তাৎক্ষণিক তাদের নাম পরিচয় জানা যায়নি। তবে মায়ের বয়স আনুমানিক ২৫-২৬ বছর হবে। তার পড়নে ছিল খয়েরি রঙের বোরকা, গায়ের রং ফর্সা। আর মেয়েটির বয়স ৪-৫ বছর হবে।

স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর তানভীর হোসেন জানান, এলাকাটি নির্জন। ধা`রণা করা হচ্ছে দু`র্বৃত্তরা তাদের এখানে এনে গলা কে`টে হ`ত্যা করেছে।ওসি রফিকুল ইসলাম আরো জানান, বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। লাশ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য গাজীপুর শহিদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ম`র্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতদের পরিচয় শনাক্তের চেষ্টা চলছে।

আরও পড়ুন=তারকায় ঠাসা পিএসজি পারল না ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটির বিপক্ষে। দুর্দান্ত এক জয়ে মেসির দলকে হারাল তার সাবেক গুরু পেপ গার্দিওলার শিষ্যরা।ইতিহাদ স্টেডিয়ামে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের গ্রুপ পর্বে ফিরতি লেগের ম্যাচে ২-১ গোলে জিতেছে ম্যানসিটি। এতে গ্রুপসেরা হয়ে নকআউট পর্বের টিকিট নিশ্চিত করেছে ইংলিশ চ্যাম্পিয়নরা।অবশ্য বুধবার রাতে অবশ্য এখানে হারলেও অন্য ম্যাচের ফল পক্ষে আসায় নকআউট পর্বে উঠে গেছে পিএসজি। একই সময়ে শুরু হওয়া আরেক

ম্যাচে ক্লাব ব্রুজকে ৫-০ গোলে হারিয়ে দিয়েছে লাইপজিগ। ম্যাচের প্রথমার্ধ জুড়ে ম্যানচেস্টার সিটির একের পর এক আক্রমণে কোণঠাসা হয়ে পড়ে পিএসজি। যদিও সাফল্য পায়নি সিটির স্ট্রাইকাররা। ৩৩তম মিনিটে গিনদোয়ানের বুলেট গতির শট পোস্টে বাধা পায়। মুহুর্ত পরই মাহরেজের আরেক শট ঝাঁপিয়ে ঠেকিয়ে জাল অক্ষত রাখেন নাভাস।গোলশূন্যাবস্থায় শেষ হয় প্রথমার্ধ। দ্বিতীয়ার্ধ শুরু হতেই দলকে এগিয়ে দেন পিএসজির ফরাসি তারকা কিলিয়ান এমবাপ্পে।ডি-বক্সের বাইরে আন্দের এররেরার সঙ্গে ওয়ান-টু-ওয়ান খেলে ভিতরে ঢুকে ডান দিকে পাস দিলেন মেসি। বল চলে গেল অরক্ষিত এমবাপ্পের পায়ে। ঠাণ্ডা মাথায় কাছের পোস্ট দিয়ে ম্যানসিটির জালে বল জড়িয়ে দেন ফরাসি ফরোয়ার্ড।