bangla music

bangla music

জাতীয়

মেয়র থেকে বরখাস্তের পর জাহাঙ্গীরের বিষয়ে যা বললেন মন্ত্রী

জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে কটূক্তির অভিযোগে আওয়ামী লীগ থেকে আজীবন বহিষ্কার হওয়া জাহাঙ্গীর আলম এবার মেয়র পদও হারাচ্ছেন। তাকে মেয়র পদ থেকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) সচিবালয়ে স্থানীয় সরকার মন্ত্রী তাজুল ইসলাম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান। এর আগে গাজীপুর সিটির জন্য তিন সদস্যে প্যানেল মেয়র গঠন করা হয়।

মেয়র পদ থেকে জাহাঙ্গীরকে বরখাস্তের বিষয়ে স্থানীয় সরকারমন্ত্রী বলেন, জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে বেশকিছু অভিযোগ আছে। এরমধ্যে সরকারি সম্পদের অপব্যবহার, জনগণের স্বার্থবিরোধী কাজ করা, জায়গা দখণ, অর্থ আত্মসাত, ক্ষমতার অপব্যবহারসহ নানা অভিযোগ আছে। সেগুলো তদন্তের স্বার্থে এখন বলা যাচ্ছে না।

তিনি বলেন, যেহেতু আইন অনুযায়ী কোনো নির্বাচিত জনপ্রতিনিধি/মেয়রের বিরুদ্ধে যদি কোনো অভিযোগ উঠে এবং তদন্তের নিষ্পত্তির জন্য আমলে নেওয়া হয় তাহলে আইনে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করার নিয়ম আছে।জাহাঙ্গীরের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন কবে দেওয়া হবে- সাংবাদিকদের এ প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, আমার তার (জাহাঙ্গীর) বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগের নথি আমলে নিয়েছি।

ইতোমধ্যেই তদন্ত আরম্ভ হয়েছে। কত দিন লাগতে পারে সেটি এখন বলা মুশকিল। তদন্তে নতুন অনেক কিছু যুক্ত হতে পারে। ইতোমধ্যে জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে অভিযোগগুলো নিয়ে তিন সদস্যের একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে বলেও জানান তাজুল ইসলাম।এর আগে মেয়র জাহাঙ্গীর ঘরোয়া আয়োজনে বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ নিয়ে কটূক্তি বক্তব্য দিলে সেই ভিডিও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়।

ফেসবুকে ভাইরাল হওয়া চার মিনিটের ওই ভিডিওতে দেখা যায়, বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ ছাড়াও মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আজমত উল্লাহ খান, যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল, হেফাজতের প্রয়াত নেতা জুনায়েদ বাবুনগরীর সঙ্গে তার সখ্য ও রাষ্ট্রীয় দুটি সংস্থা নিয়ে নানা আপত্তিকর মন্তব্য করছেন মেয়র জাহাঙ্গীর।